ক্যাসিনো কাণ্ডের বিচার সম্পন্ন করে দুর্নীতি বিরোধী জিরো টলারেন্সের প্রমাণ দিন : দুর্নীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরাম

প্রকাশিত: ৮:০৯ পূর্বাহ্ণ, মে ১৩, ২০২১

ক্যাসিনো কাণ্ডের বিচার সম্পন্ন করে দুর্নীতি বিরোধী জিরো টলারেন্সের প্রমাণ দিন : দুর্নীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরাম

অনলাইন ডেস্ক ::

দুর্নীতি মুক্তকরণ বাংলাদেশ ফোরামের কেন্দ্রীয় সভাপতি নাছির উদ্দিন এডভোকেট, সিনিয়র সহ সভাপতি ইকবাল হোসেন চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক জননেতা মকসুদ হোসেন এক বিবৃতিতে ২০১৯ সালে ক্যাসিনো বিরোধী অভিযান পরিচালনা কালে সরকারের নীতি নির্ধারকরা জোর গলায় বলেছিলেন অপরাধী যে-ই হোকনা কেন, পার পাবে না। সবাইকে বিচারের আওতায় আনা হবে।

উল্লেখ্য, ক্যাসিনো বিরোধী অভিযানে অভিযুক্ত মানুষরূপী এই জানোয়ারদের বিরুদ্ধে ৩২টি মামলা হয়। মানিলন্ডারিং আইনে হওয়া ১৪টি মামলার মধ্যে ১০টির অভিযোগপত্র দেয়া হয়েছে। যুবলীগ নেতা সম্রাটের বিরুদ্ধে হওয়া মামলা সহ ৪ মামলার অভিযোগপত্র আটকে গেছে। মামলার সূত্রে অনেক রাঘব-বোয়ালের নাম এসেছিল। যারা ধরাছোয়ার বাইরে থেকে গেছেন। এসব মামলার তদন্ত প্রতিবেদন আদালতে জমা দেয়া হলেও বিচার প্রক্রিয়ায় গতি নেই।

ক্যাসিনো মামলায় আটক সম্রাট ও জি.কে শামীম গ্রেফতার হলেও অসুস্থতার দোহাই দিয়ে পি.জি হাসপাতালে রাজার হালে আছেন। বাংলাদেশ অদ্ভুত ঘটনা। আটক গুরুতর অসুস্থ ব্যক্তিরাও অনেক সময় হাসপাতালে ভর্তির সুযোগ পান না। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে আটক লেখক মোস্তাক আহমদ অসুস্থ অবস্থায় কারাগারে মরতে হয়েছে। আর সম্রাট ও জিকে শামীমের মত প্রভাবশালী আসামীরা নানা অজুহাতে বন্দী জীবনের বেশির ভাগ সময় হাসপাতালে কাটানোর সুযোগ পান।

দেশবাসীর দাবী অনতিবিলম্বে ক্যাসিনো কাণ্ডের সকল মামলাগুলোর অভিযুক্তপত্র দ্রুত পেশ করে ক্যাসিনো কাণ্ডের বিচার সম্পন্ন করার মাধ্যমে সরকারকে দুর্নীতি বিরোধী জিরো টলারেন্স নীতির প্রমাণ করার আহবান জানান।